চ্যানেলগুলো কেন বন্ধ করে দিচ্ছে ইউটিউব?
চ্যানেলগুলো কেন বন্ধ করে দিচ্ছে ইউটিউব?
২০১৭-১২-০৬ ০১:০৫:১৩
প্রিন্টঅ-অ+


শিশুদের জন্য উপযোগী নয়, এমন যেকোনো ভিডিও সরিয়ে ফেলতে শুরু করেছে ইউটিউব। যেসব চ্যানেলে শুধুমাত্র প্রাপ্তবয়স্কদের উপযোগী ভিডিও আছে সেগুলো বন্ধও করে দিচ্ছে তারা। এ কাজের জন্য ইউটিউব প্রায় ১০ হাজার নতুন কর্মী নিয়োগ দেবে।

বর্তমান নীতিমালায় ইউটিউব থেকে এরই মধ্যে ৫০টি চ্যানেল বন্ধ এবং ৫ লাখ ভিডিও সরিয়ে ফেলা হয়েছে।

টেলিগ্রাফকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে এ তথ্য জানিয়েছেন ইউটিউবের প্রধান নির্বাহী সুসান ওজকিকি। নিয়োগ দেয়া ওই জনবল বাচ্চাদের জন্য বিপদজনক যেকোনো ভিডিও যাচাই এবং নিয়ন্ত্রণে নজর রাখবে।

সুসান বলেন, ফেসবুক, গুগল এবং টুইটারের সঙ্গে ইউটিউবও সন্ত্রাসী উপাদান এবং প্রচারণার ওপর নজরদারি চালিয়ে যাচ্ছে।

গত মাসে এক নীতিমালা করে ইউটিউব এক ঘোষণায় জানায়, বাচ্চাদের জন্য বন্ধুত্বপূর্ণ নয় এমন বিষয়বস্তু ইউটিউব থেকে সরিয়ে ফেলা হবে।

ইউটিউবে প্রোডাক্ট ম্যানেজমেন্টের ভাইস প্রেসিডেন্ট জোহানা রাইট এক ব্লগে পোস্টে জানিয়েছেন, ‘কিছু ভিডিও আছে যা শুধু বয়স্কদের উপযোগী ও তা শিশুদের জন্য ভয়ানক। ওই সব ভিডিওগুলো আমরা ইউটিউব থেকে সরিয়ে ফেলতে কাজ করে যাচ্ছি।’

ইউটিউব তাদের এই কার্যক্রমের গতি আনতে নতুন নিয়োগ করা জনবলের পাশাপাশি মেশিন লার্নিং প্রযুক্তি এবং স্বয়ংক্রিয় সরঞ্জামগুলি প্রয়োগ করবে।

ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট অাইনে পু্র্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবেনা ।

মন্তব্য

মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু নিয়ে ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো দায় নেবে না।

বিবিধ এর অারো খবর