কয়েক সেকেন্ডেই চার্জ হবে স্মার্টফোন!
কয়েক সেকেন্ডেই চার্জ হবে স্মার্টফোন!
২০১৭-১০-২৯ ০১:৩৩:১৪
প্রিন্টঅ-অ+


ব্যস্ততার মাঝে স্মার্টফোনটির চার্জ চলে যাওয়া মানে বিশাল বিপদে পড়া। তাই দ্রুত চার্জের জন্য প্রযুক্তি ইতিমধ্যে ব্যবহার শুরু হয়েছে।

এখন মাত্র আধা ঘণ্টা থাকে এক ঘণ্টার মধ্যেই মোবাইল পুরো চার্জ হওয়া সম্ভব। কিন্তু এবার নতুন এক প্রযুক্তি নিয়ে চলছে গবেষণা। এর কাজও হবে বিস্ময়কর। মাত্র কয়েক সেকেন্ডের মধ্যেই আপনার মোবাইলটি চার্জ হয়ে যাবে!

যুগান্তকারী এক প্রযুক্তিকে এগিয়ে নিয়ে চলেছেন বিশেষজ্ঞরা। বলছেন, শক্তি ধারণ করে রাখে এমন যন্ত্র, অর্থাৎ ব্যাটরিতে চলা যন্ত্রের চার্জ প্রদানে বিশেষ প্রযুক্তি বিকাশলাভ করছে যার নাম সুপারক্যাপাসিটর্স।

যে বৈদ্যুতিক শক্তি ব্যাটারিকে দ্রুত চার্জ করে, নতুন প্রযুক্তির মাধ্যমে তাকে দ্বিগুন বা তারও বেশি করে দেওয়া হবে। ফলে মুহূর্তেই চার্জ হয়ে যাবে স্মার্টফোন বা ল্যাপটপ। বৈদ্যুতিক যানবাহনও একই সুবিধা পাবে।

কানাডার ইউনিভার্সিটি অব ওয়াটারলুর প্রফেসর মাইকেল পোপ বলেন, সুপারক্যাপাটিটরের মাধ্যমে বিস্ময়কররকম কম সময়ে চার্জ করা সম্ভব হবে।

আর শক্তি যতটা ঘনীভূত করা যাবে, ব্যাটারি ততটাই শক্তিশালী হবে।

সুপারক্যাপাসিটর আসলে সম্ভাবনাময়, পরিবেশবান্ধব কিন্তু গতানুগতিক ব্যাটারির মতোই। বরং এতে আরো বাড়তি নিরাপত্তা দেবে এবং নির্ভরযোগ্য তো বটেই। সুপারক্যাপাসিটরগুলো প্রচুর শক্তি ধারণ করতে সক্ষম।

এগুলো দিয়ে সেলফোন, ল্যাপটপ বা অন্যান্য যন্ত্রের ব্যাটারি চার্জ করা যায়। এখন এদের চার্জ দেওয়ার ক্ষমতা বাড়াতে পোপ এবং তার সহকর্মীরা গ্রাফিন নামের পাতলা স্তরের এক কনডাক্টর তৈরি করেছেন। সুপারক্যাপাসিটরের ইলেকট্রোডের এক তেলতেলে তরল লবণের মাধ্যমেই তা বানানো হয়েছে। এই জিনিসটি শক্তি ধারণের ক্ষমতা বৃদ্ধিসহ খুব দ্রুত চার্জ নিতে সক্ষম। কাজেই যেসব ইলেকট্রনিক যন্ত্র, যান বা সিস্টেম শক্তি গ্রহণ করে তাদের জন্যে সুপারক্যাপাসিটরগুলো আশীর্বাদ হয়ে দেখা দেবে।

এখন যদি এই প্রযুক্তিকে সঠিকভাবে কাজে লাগনো যায়, তবে তা খুব শিগগিরই প্রযুক্তি জড়িয়ে থাকা জীবনের অংশ হয়ে উঠবে।

সূত্র : গেজেট স্নো

ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট অাইনে পু্র্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবেনা ।

মন্তব্য

মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু নিয়ে ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো দায় নেবে না।

বিজ্ঞান প্রযুক্তি এর অারো খবর