পরিবেশ দূষণে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু বাংলাদেশে
পরিবেশ দূষণে সবচেয়ে বেশি মৃত্যু বাংলাদেশে
২০১৭-১০-২০ ১৮:৪১:৫৬
প্রিন্টঅ-অ+


বিশ্বে প্রতি ছয়জনের মধ্যে একজনের মৃত্যু ঘটছে পরিবেশ দূষণের কারণে। এ দিক থেকে বাংলাদেশ ও সোমালিয়ার পরিস্থিতি সবচেয়ে খারাপ । এ দুটি দেশে মোট মৃত্যুর প্রায় ২৮ শতাংশ পরিবেশ দূষণজনিত রোগের কারণে হয়। যুক্তরাজ্যভিত্তিক চিকিৎসা বিষয়ক গবেষণা সাময়িকী দ্য ল্যানসেটে শুক্রবার প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এতে বলা হয়েছে, বিশ্বে ২০১৫ সালে দুষণজনিত রোগে ভুগে প্রায় ৯০ লাখ মানুষের মৃত্যু হয়েছে। আর এই পরিবেশ দূষণজনিত কারণে মারা যাওয়া অধিকাংশই মানুষই নিম্ম বা মধ্যম আয়ের দেশের বাসিন্দা। এইসব দেশে প্রতি চারজনে একজন পরিবেশ দূষণজনিত রোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান।

পরিবেশ দূষণ বলতে বায়ু, পানি ও মাটি এবং কর্মক্ষেত্রে দূষিত পরিবেশের কথা বলা হয়েছে।পরিবেশ দূষণের কারণে হৃদরোগ, স্ট্রোক ও ফুসফুস ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে সবচেয়ে বেশি মানুষ মারা যায়। দূষণজনিত মৃত্যুতে সবচেয় বড় ভূমিকা বায়ু দূষণের, যা মোট মৃত্যুর প্রায় দুই-তৃতীয়াংশ। প্রতি বছর বায়ু দূষণের কারণে ৬৫ লাখ মানুষের মৃত্যু হয়। বায়ু দূষণের পরই পানি দূষণের অবস্থান। প্রতি বছর প্রায় ১৮ লাখ মানুষ পানি দূষণজনিত রোগে ভুগে মারা যান। কর্মক্ষেত্রে দূষণ ৮ লাখ মানুষের মৃত্যুর জন্য দায়ী।

বাংলাদেশে বায়ুদূষণের কারণে মৃত্যুর হার বেশি। প্রতি বছর এ দেশে ২ লাখ ১০ মানুষের মৃত্যু হয় বায়ুদূষণের কারণে।

প্রধান গবেষক আইকন স্কুল অব মেডিসিনের অধ্যাপক ফিলিপ ল্যান্ডরিগান বলেন, ‘আমরা বছরে ৯০ লাখ মানুষের মৃত্যুর বিষয়টি নিয়ে ভীত, আমরা খামটিকে ঠেলে দিচ্ছি বিশ্ব যতটুকু দূষণ সহ্য করতে পারে তার দিকে।’ উদহারণ হিসেবে তিনি বলেন, ২০৫০ সাল নাগাদ দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার দেশগুলোতে বায়ু দূষণের কারণে মৃত্যুর সংখ্যা দ্বিগুন হতে যাচ্ছে।

তিনি বলেন, ‘জলবায়ু পরিবর্তনের চেয়ে পরিবেশ দূষণ অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। এটা নানা দিক দিয়ে মানবজাতির স্বাস্থ্য ও সুস্থতার উপর একটি গভীর ও বিস্তৃত হুমকি।’

ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট অাইনে পু্র্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবেনা ।

মন্তব্য

মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু নিয়ে ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো দায় নেবে না।

পরিবেশ এর অারো খবর