শক্তিশালী করা হলো রোবটের হাত
শক্তিশালী করা হলো রোবটের হাত
২০১৭-০৯-২৩ ০৬:৪৭:১৭
প্রিন্টঅ-অ+


আমরা পেশীর শক্তি বাড়ানোর জন্য খাবার গ্রহণ বা ব্যায়াম করে থাকি। কিন্তু রোবটের তো আর সেই সুযোগ নেই।

তাই মানব সাদৃশ্য রোবটকে (হিউম্যানওয়েড রোবট) আরো বাস্তবসম্মত করে তুলতে বিজ্ঞানীরা এবার তৈরি করেছেন সিন্থেটিক পেশী এবং এই পেশী নিজের ওজন হাজার বেশি পর্যন্ত বাড়াতে সক্ষম।

মানবসাদৃশ্য রোবটের আগের মডেলগুলোর মতো বাহ্যিক কমপ্রেসার বা উচ্চ ভোল্টেজের সরঞ্জাম ব্যবহার প্রয়োজন হয় না, থ্রিডি প্রিন্টারে তৈরি নতুন এই সিন্থেটিক নরম পেশীতে। নতুন এই কৃত্রিম পেশীর হাত দিয়ে রোবট মানুষের মতোই কোনো কিছু ধরে টানা, ধাক্কা দেওয়া, হাত মোচর ও বাঁকানোর পাশাপাশি ওজন উত্তোলন করতে পারবে।

রোবটের জন্য নতুন এই থ্রিডি প্রিন্টেড নরম ও শক্তিশালী পেশী তৈরি করেছেন কলম্বিয়া ইউনিভার্সিটি স্কুল অব ইঞ্জিনিয়ারিং এবং অ্যাপ্লায়েড সায়েন্স-এর গবেষকদের একটি দল। দলনেতা অধ্যাপক হোড লিপসন বলেন, ‘জীবন্ত প্রাণীর পেশী সুবিধা থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে তারা রোবটের জন্য এ ধরনের পেশী তৈরি করেছেন। রোবটিক্সে নরম উপাদান ব্যবহার নতুন দিগন্তের সৃষ্টি করবে বিশেষ করে যেখানে মানুষের সঙ্গে মিলে রোবটকে কাজ করতে হয় যেমন উৎপাদন কিংবা স্বাস্থ্যসেবার ক্ষেত্রে।’

রোবটের এই সিন্থেটিক পেশী সিলিকন রাবার ম্যাট্রিক্স দিয়ে গঠন করা হয়েছে, যা তৈরিতে ব্যবহার করা হয়েছে ইথানলের মাইক্রোবাবল। সরু তার দিয়ে এটি যুক্ত করা যায় এবং অল্প বিদ্যুৎ খরচ করে। এছাড়া উপাদানটিকে নানা ধরনের শেপে তৈরি করা যায়।

লিপসন বলেন, ‘কঠিন যন্ত্রাংশের রোবটগুলোর বিপরীত। নরম রোবটগুলো প্রাকৃতিক গতি, ভঙ্গি, হাতের কৌশল ব্যবহারের মাধ্যমে চিকিৎসবা বা অন্যান্য ধরনের সহায়তার জন্য সূক্ষ্ম বা নরম কাজে খুবই গুরুত্বপূর্ণ।’

তিনি আরো বলেন, ‘রোবটিক্স গবেষণা রোবটের মন তৈরির দিকে ব্যাপক অগ্রগতি হচ্ছে, কিন্তু রোবটের শরীরের এখন সেই আদিম পর্যায়ের। তাই বিভিন্ন যন্ত্রাংশের কঠিন শরীরের পরিবর্তে নরম শরীর হিসেবে এই পেশী যুগান্তকারী ভূমিকা রাখতে সক্ষম হবে। এর মাধ্যমে প্রাণবন্ত রোবট তৈরিতে অন্যতম একটি প্রধান বাধা অতিক্রম করতে সক্ষম হয়েছি আমরা।’

কম্পিউটারে নিয়ন্ত্রণের মাধ্যমে, স্বায়ত্তশাসিত এই ইউনিটটিকে প্রায় সব ধরনের ডিজাইনের সঙ্গে ব্যবহার করা যাবে সুস্থির গতির কাজে।

ক্রিয়েটিভ মেশিন ল্যাবের পোস্টডক্টোরাল গবেষক ড. মিরিয়েভ বলেন, ‘আমাদের উদ্ভাবনকৃত নরম উপাদানটি রোবটের শক্তশালী নরম পেশী হিসেবে কাজ করতে পারে, যা সম্ভবত বর্তমানে রোবোটিক্সে নরম উপাদান ব্যবহারের সমাধানের ক্ষেত্রে বড় বিপ্লব। নতুন উপাদানের মাধ্যমে তৈরি রোবটের হাত প্রায় মানুষের হাতের মতোই কোনো কিছু ধরে টানা, ধাক্কা দেওয়া, হাত মোচর ও বাঁকানোর পাশাপাশি ওজন উত্তোলন করতে সক্ষম। এটি প্রাকৃতিক পেশীর কাছাকাছি একটি কৃত্রিম উপাদান।’

গবেষক দলটি তাদের এই উদ্ভাবনকে উন্নত করার পরিকল্পনা করেছে, যাতে রোবটে বড় যন্ত্রাংশের পরিবর্তে কোমল উপাদান প্রতিস্থাপন করা সম্ভব হয়। তাছাড়া রোবটে কৃত্রিম এই নরম পেশীর কাজের সময় এবং স্থায়িত্ব বাড়াতে গবেষণা চালাচ্ছেন তারা।

ড. মিরিয়েভ বলেন, ‘দীর্ঘমেয়াদে আমরা কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার মাধ্যমে রোবটকে পেশীর নিয়ন্ত্রণ দেওয়ার চেষ্টা করছি, যা রোবটের জন্য প্রাকৃতিক গতির শেষ মাইলস্টোন হতে পারে।’

গবেষণার বিস্তারিত তথ্য নেচার কমিউনিকেশনস জার্নালে প্রকাশ করা হয়েছে।

তথ্যসূত্র : ডেইলি মেইল

ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট অাইনে পু্র্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবেনা ।

মন্তব্য

মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু নিয়ে ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো দায় নেবে না।

বিজ্ঞান প্রযুক্তি এর অারো খবর