দেশব্যাপী ‘স্পেস অ্যাপস নেক্সট জেন’ ক্যাম্পেইন
দেশব্যাপী ‘স্পেস অ্যাপস নেক্সট জেন’ ক্যাম্পেইন
ডেস্ক রিপোর্ট
২০১৭-০১-১৮ ০১:৩৫:৫১
প্রিন্টঅ-অ+


সরকারের তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগ, বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিল এবং বাংলাদেশ ইনোভেশন ফোরামের যৌথ উদ্যোগে প্রথমবারের মতো বাংলাদেশে আয়োজিত হতে যাচ্ছে ‘স্পেস অ্যাপস নেক্সট জেন’ নামক হ্যাকাথন। রাজধানীর ইউনাইটেড ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটিতে চলতি মাসের ২৭ এবং ২৮, দুই দিনব্যাপী ৩৬ ঘণ্টার এই হ্যাকাথন অনুষ্ঠিত হবে।

এই লক্ষে দেশের বিভিন্ন জেলাসহ রাজধানী ঢাকার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ক্যাম্পেইন চলছে। সারা দেশের ৮০টির বেশি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ইতোমধ্যে স্পেস অ্যাপস নেক্সট জেন এর ক্যাম্পেইন সম্পন্ন হয়েছে।

‘স্পেস অ্যাপস নেক্সট জেন’ হল ৩৬ ঘন্টার একটি হ্যাকাথন, যা পরিচালনায় সহায়তা করে যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিষ্ঠান ‘সেকেন্ড মিউজ’। বাংলাদেশের সকল স্কুল এবং কলেজের শিক্ষার্থীরা ডেটা ডাইভ, সেন্সর ইয়োরসেলফ, স্পেস ইনভেডারস সহ যেকোনো আইডিয়া প্রজেক্ট জমা (রেজিস্ট্রেশনের মাধ্যমে) দিতে পারবে। প্রতিটি দলে ২-৪ জন শিক্ষার্থীর সমন্বয়ে কাজ করতে হবে। পরবর্তীতে অভিজ্ঞ মেনটর প্যানেলের সিদ্ধান্তে ৫০টি দল চূড়ান্ত পর্বে তাদের দক্ষতার প্রমাণ দেখানোর সুযোগ পাবে। প্রতিটি দলে একজন সমন্বয়ক/পরামর্শদাতা থাকবে, যিনি কারিগরি সহযোগিতা, দিক নির্দেশনা তথা দলের সার্বিক সহযোগীতায় থাকতে পারবে। তিন বিভাগ থেকে জয়ী প্রতিটি দলকে আয়োজকদের পক্ষ থেকে সার্টিফিকেট এবং পুরষ্কৃত করা হবে।

জয়ী প্রতিটি দল পরবর্তীতে ৫টি দেশে আয়োজিত এই হ্যাকাথনের বিজয়ীদের সঙ্গে তাদের দক্ষতার প্রমাণ দেওয়ার সুযোগ পাবে। সর্বশেষ চূড়ান্ত বিজয়ীদের স্পেস অ্যাপস নেক্সট জেন, সেকেন্ড মিউজের ওয়াশিংটন ডিসির প্রধান কার্যালয় থেকে সার্টিফিকেট এবং পুরষ্কার প্রদান করা হবে।

বাংলাদেশ ইনোভেশন ফোরামের প্রতিষ্ঠাতা আরিফুল হাসান অপু বলেন, আমাদের দেশের ছেলে-মেয়েদের মেধা দিয়ে বিশ্ব জয় করার ক্ষমতা আছে। তাদের সুপ্ত প্রতিভার সঠিক ব্যবহার, নিজেদের সাফল্যের চূড়ান্ত ধাপে নিয়ে যাবে বলে আশা করি।

তিনি আরো বলেন, দেশব্যাপী এই ক্যাম্পেইনের মাধ্যমে স্পেস অ্যাপস নেক্সট জেন নিয়ে শিক্ষার্থীদের আগ্রহ বৃদ্ধির পাশাপাশি তাদের উদ্ভাবনী চিন্তাশক্তির বিকাশের সহায়ক হবে।

স্পেস অ্যাপস নেক্সট জেন এ অংশগ্রহণের জন্য রেজিস্ট্রেশন করতে হবে। রেজিস্ট্রেশনের জন্য অনলাইনে আবেদন করা যাবে। আবেদন করার ঠিকানা- www.bif.org.bd। এছাড়াও প্রজেক্টের নাম, প্রতিযোগীদের নাম (টিম প্রধান উল্লেখ করে), প্রজেক্টের সংক্ষেপ বিবরণ, শিক্ষক/অভিভাবকের নাম, মোবাইল নং, ইমেইল লিখে পাঠিয়ে দেওয়া যাবে এই ঠিকানায়- ৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ (৫ম তলা), কাওরান বাজার, ঢাকা-১২১৫।

বাংলাদেশে এই প্রথমবারের মতো আয়োজন করা হলেও, এর আগে বিশ্বের ৫টি দেশ আন্তর্জাতিক এই হ্যাকাথনের আয়োজন করেছে। প্রোগ্রামটিতে প্লাটিনাম স্পন্সর হিসেবে আছে মাইক্রোসফট, গোল্ড স্পন্সর রিটস এড, পিবাজার ডটকম। এছাড়াও সহযোগিতায় বাগডুম ডটকম, ডাটা সফট, রাইজ আপ ল্যাবস।

ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট অাইনে পু্র্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবেনা ।

মন্তব্য

মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু নিয়ে ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো দায় নেবে না।

বিজ্ঞান প্রযুক্তি এর অারো খবর