বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘ এবং গভীর রেল সুড়ঙ্গটি চালু হয়েছে
বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘ এবং গভীর রেল সুড়ঙ্গটি চালু হয়েছে
২০১৬-১২-১৪ ২৩:৪৩:১৭
প্রিন্টঅ-অ+


বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘ এবং সবচেয়ে গভীর রেল সুড়ঙ্গটি চালু হয়েছে। সুইজারল্যান্ডের আল্পস পর্বতের নিচে নির্মিত এই রেল সুড়ঙ্গ দিয়ে রোববার যাত্রী চলাচল ও পরিবহন কার্যক্রম শুরু হয়েছে। প্রায় দুই দশক ধরে সুড়ঙ্গটির নির্মাণের পর জুনে এর আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করা হয়। দেশটির জুরিখ শহর থেকে লুগানো শহর অভিমুখে প্রথম যাত্রীবাহী ট্রেন ছেড়ে যায়।

গার্ডিয়ানের প্রতিবেদনে বলা হয়, ৫৭ কিলোমিটার দীর্ঘ গোটহার্ড রেল সুড়ঙ্গটিতে জোড়া রেল রাস্তা রয়েছে। সুইস আল্পস পর্বতের নিচে তৈরি এই সুড়ঙ্গ দিয়ে উত্তর ও দক্ষিণ ইউরোপের মধ্যে দ্রুত গতির রেল চলবে। এই রেল সুড়ঙ্গ ইউরোপের পণ্য পরিবহন ব্যবস্থায় আমূল পরিবর্তন আনবে বলে আশা সুইস কর্তৃপক্ষের। এর মাধ্যমে সুইজারল্যান্ডের জুরিখ ও ইতালির মিলানের মধ্যে ভ্রমণকারীদের প্রায় আড়াই ঘণ্টা সময় বেঁচে যাবে। সুড়ঙ্গটি পার হতে ১৭ মিনিট সময় লাগে। প্রতিদিন প্রায় ২৬০টি পণ্যবাহী ট্রেন এবং ৬৫টি যাত্রীবাহী ট্রেন সুড়ঙ্গ পথে চলবে। রেল সুড়ঙ্গ তৈরি করতে ১২০০ কোটি মার্কিন ডলারের বেশি খরচ হয়েছে। সুড়ঙ্গটি তৈরি করা নিয়ে ১৯৯২ সালে সুইজারল্যান্ডে গণভোট অনুষ্ঠিত হয়। মূল্য সংযোজন কর ও জ্বালানি কর, সড়কে ভারি যান চলাচলের চার্জ এবং বিভিন্ন দেশে দেয়া ঋণ যেগুলো এক দশকের বেশি সময় ধরে পরিশোধ করা হয়নি সেগুলো থেকে সুড়ঙ্গটির নির্মাণ ব্যয় উত্তোলন করা হয়েছে। এর আগে জাপানের সেইকান রেল সুড়ঙ্গটি (৫৩.৯ কিলোমিটার) বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘ রেল সুড়ঙ্গ ছিল। তার পরেই ছিল ৫০.৫ কিলোমিটার লম্বা চ্যানেল টানেল (ইউরোটানেল), যেটা যুক্তরাজ্য ও ফ্রান্সকে যুক্ত করেছে।

ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট অাইনে পু্র্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবেনা ।

মন্তব্য

মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু নিয়ে ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো দায় নেবে না।

বিদেশ এর অারো খবর