নগ্নতার অভিযোগে ঐতিহাসিক ছবি মুছে দিল ফেসবুক
নগ্নতার অভিযোগে ঐতিহাসিক ছবি মুছে দিল ফেসবুক
ডেস্ক রিপোর্ট
২০১৬-০৯-১২ ০৭:৪৪:২৩
প্রিন্টঅ-অ+


ভিয়েতনাম যুদ্ধের সময়কার একটি ঐতিহাসিক ছবি, যা পুলিৎজার পুরস্কারজয়ী, সেই ছবি ফেসবুক কর্তৃপক্ষ মুছে দিয়েছে ছবিটিতে নগ্ন শিশু প্রদর্শিত হওয়ায়।

ছবিটি মুছে দেওয়ায় ফেসবুকের সম্পাদনা ভূমিকা নিয়ে বিতর্ক সৃষ্টি হয়েছে। নরওয়ের সর্বাধিক জনপ্রিয় পত্রিকার সম্পাদক বিষয়টিকে ‘ক্ষমতার অপব্যবহার’ অভিহিত করে পত্রিকাটির প্রথম পাতায় একটি খোলা চিঠি প্রকাশ করেছেন ফেসবুকের প্রধান নির্বাহী মার্ক জাকারবার্গের উদ্দেশ্যে।

ছবিটি ‘নাপাম গার্ল’ নামে খ্যাত। নাপামে সংঘাতকালে অন্যান্য শিশুদের সঙ্গে নয় বছর বয়সী কিম ফুক নামক এক নগ্ন শিশুকন্যার আতংকিত হয়ে পালানোর পরিস্থিতির ছবি। ১৯৭২ সালে এই ছবিটিতে তুলেছিলেন এপির ফটোগ্রাফার নিক অ্যাট। ভিয়েতনাম যুদ্ধের সময়কার এটি অন্যতম একটি ঐতিহাসিক ছবি, যা পুলিৎজার পুরস্কার জিতেছিল।

যুদ্ধের ইতিহাসভিত্তিক এই ছবিটি নরওয়ের প্রভাবশালী পত্রিকা আফটেনপোস্টেন সম্প্রতি তাদের ফেসবুক পেজে পোস্ট করা করেছিল। নরওয়ের প্রধানমন্ত্রী আর্না সোলবার্গও তার ফেসবুকে প্রোফাইলে ঐতিহাসিক এই ছবিটি পোস্ট করেছিলেন।

কিন্তু ছবিটি ফেসবুকের নগ্নতা নীতিমালা ভঙ্গ করেছে বলে জানিয়ে ঐতিহাসিক ছবিটি মুছে দেয় ফেসবুক কর্তৃপক্ষ। নগ্ন শরীরের ছবি ফেসবুকের নীতিমালা বিরোধী।

তবে ঐতিহাসিক এই ছবিটিকে নগ্নতার নীতিমালায় ফেলায় বির্তকের ঝড় শুরু হয় ফেসবুকে কর্তৃপক্ষের সম্পাদনার ক্ষমতা নিয়ে।

ফেসবুক প্রধানের প্রতি খোলা চিঠিতে এসপেন ইগিল হ্যানসেন বলেন, ‘আমি খুবই মর্মাহত, হতাশ এমনকি ভীত। বিশ্বের সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ মাধ্যমে স্বাধীনতা প্রসারিত করার পরিবর্তে তা সীমিত করা হচ্ছে। যা স্বৈরাচারী মনোভাব।’

ফেসুবক কর্তৃপক্ষ প্রথমে তাদের সিদ্ধান্তে অনঢ় থাকলেও, বিতর্কের চাপে পড়ে অবশেষে ছবিটি পুর্ণবহাল করার সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছে।

ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট অাইনে পু্র্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবেনা ।

মন্তব্য

মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু নিয়ে ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো দায় নেবে না।

বিদেশ এর অারো খবর