ফ্লোরিডায় আবারো বন্দুক হামলা: নিহত ২
ফ্লোরিডায় আবারো বন্দুক হামলা: নিহত ২
স্টাফ রিপোর্টার
২০১৬-০৭-২৫ ২১:৪০:০৫
প্রিন্টঅ-অ+


যুক্তরাষ্ট্রে ফ্লোরিডা অঙ্গরাজ্যের ফোর্ট মায়েরের এক নৈশক্লাবে গুলি চালিয়েছে বন্দুকধারী। প্রাথমিক তথ্য অনুযায়ী এ ঘটনায় ২ জনের নিহত এবং কমপক্ষে ১৪ জনের আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। গত জুন মাসের ১২ তারিখে একই অঙ্গরাজ্যের অরল্যান্ডো শহরের পালস ক্লাবে হামলা করে ৫০ জনকে হত্যা করে উমর মতিন নামের বন্দুকধারী।




রোববার ঠিক মধ্যরাতে ফোর্ট মায়ার্সের ওই ক্লাবে এ ঘটনায় আরও অন্তত ১৪ জন আহত হয়েছেন বলে সিএনএসের খবরে জানানো হয়েছে। ফোর্ট মায়ের পুলিশের মুখপাত্র ক্যাপ্টেন জিম মুলিগানের বরাত দিয়ে হতাহতের সংখ্যা জানিয়েছে সিএনএন। খবরে বলা হয়েছে, ক্লাব ব্লু নামের ওই বারের পার্কিং এলাকায় গুলির ঘটনার সময় সেখানে সব বয়সীদের জন্য পার্টি চলছিল। অন্যদিকে বিবিসি এবং এনবিসি নিউজের পক্ষ থেকে ১৬ জন আহত হওয়ার খবর দেওয়া হয়েছে।
হতাহতদের কারও পরিচয় তাৎক্ষণিকভাবে প্রকাশ করা হয়নি। আহতদের সবাইকে হাসপাতালে পাঠিয়েছে পুলিশ।
ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি লিখেছে, এ ঘটনার সঙ্গে যোগাযোগ থাকতে পারে সন্দেহে পুলিশ আরও দুটি স্থানে তদন্ত চালাচ্ছে। এর মধ্যে একটি স্থানে এক বাড়িতে গুলির শব্দ পাওয়া গেছে, অন্য জায়গায় একটি গাড়ি দুর্ঘটনায় পড়েছে। দ্বিতীয় ঘটনায় একজনকে আটকও করা হয়েছে।
নাইট ক্লাবে গুলির ঘটনায় জড়িতদের ধরতে পুলিশ ওই এলাকায় তল্লাশি চালাচ্ছে বলেও বিবিসির প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে।
এ ঘটনা সম্পর্কে এখনও বিস্তারিত কিছু জানা যায়নি।
এরআগে ১২ জনু অরল্যান্ডোর সমকামী নাইট ক্লাবে হামলার পর আইএস নিয়ন্ত্রিত সংবাদসংস্থা আমাক নিউজ এজেন্সির বরাত দিয়ে আর্ন্তজাতিক সংবাদ মাধ্যমগুলো জানায়, রোববারের (১২ জুন) এ হামলার দায় ইসলামী জঙ্গি সংগঠন আইএস স্বীকার করেছে। হামলাকারীর টার্গেট ছিল আমেরিকার ফ্লোরিডার ওই নাইট ক্লাবের কমপক্ষে ১০০ জনকে হত্যা অথবা আহত করা। আর্ন্তজাতিক সংবাদ মাধ্যম সিবিএস নিউজ জানায়, হামলার আগে ওমর মতিন (২৯) নামে ওই বন্দুকধারী ৯১১ নম্বরে ফোন করে অপারেটরকে এ হামলা আইএসর সংশ্লিষ্টতার কথা উল্লেখ করেন এবং সারনায়েভ ব্রাদারস এর কথা বলেন। যারা ২০১৩ সালে বোস্টন ম্যারাথনে বোমা হামলা চালিয়েছিল।
অরল্যান্ডো পুলিশের প্রধান জন মিনার বরাত দিয়ে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলো সে সময় জানায়, শনিবার (১১ জুন) দিবাগত রাত ২টা থেকে ৫টা পর্যন্ত ক্লাবটিতে গুলির ঘটনা ঘটে। এ সময় সেখানে অন্তত ৩২০ জন লোক ছিলেন।

ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট অাইনে পু্র্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবেনা ।

মন্তব্য

মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু নিয়ে ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো দায় নেবে না।

বিদেশ এর অারো খবর