রাজশাহীতে বাস্তবায়িত হচ্ছে বিদ্যুৎ বিতরণ প্রকল্প
রাজশাহীতে বাস্তবায়িত হচ্ছে বিদ্যুৎ বিতরণ প্রকল্প
২০১৬-০৭-১৭ ০৪:০৬:৪৪
প্রিন্টঅ-অ+


রাজশাহী অঞ্চলে বিদ্যুৎ ব্যবস্থার উন্নয়নের পাশাপাশি দুই লাখ গ্রাহককে বিদ্যুৎ বিতরণ কার্যক্রমের আওতায় আনার লক্ষ্যে একটি নতুন বিদ্যুৎ বিতরণ প্রকল্প বাস্তবায়িত হচ্ছে।

পাওয়ার ডিস্টিবিউশন ডেভেলপমেন্ট প্রজেক্ট, রাজশাহী জোন শীর্ষক প্রকল্পটি ২০১৫ সালের জুলাই থেকে শুরু হয়ে আগামী ২০১৮ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে বাস্তবায়িত হবে।

বিদ্যুৎ উন্নয়ন বোর্ড (পিডিবি) ৯শ’ ১৫ কোটি টাকা ব্যয়ে উত্তরাঞ্চলের ৮টি জেলার ৬০টি উপজেলায় প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করছে। ব্যয়ের ৮শ’ ৮০ কোটি টাকা সরকার দিবে এবং বাকি ৩৫ কোটি টাকা পিডিবি যোগান দিবে।

পিডিবি’র অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী হজরত আলী জানান, এ উন্নয়ন প্রকল্পটি ৪ শতাংশ সিস্টেম লস কমাতে সাহায্য করবে এবং ২০১৮ নাগাদ প্রকল্পের মাধ্যমে কয়েক ধাপে পাঁচ লাখ গ্রাহককে বিদ্যুৎ বিতরণ কার্যক্রমের আওতায় আনা হবে।

প্রকল্পের আওতায় ১৩শ’ ৭৫ কিলোমিটার নতুন সংযোগ লাইন স্থাপন এবং ১৮শ’ ৮ কিলোমিটার বিদ্যুৎ লাইন সংস্কার করা হবে। প্রকল্পটি বাস্তবায়নে ১১ একর জমি অধিগ্রহণ, ৯শ’ ৫২টি নতুন ট্রান্সফমার ক্রয় এবং ৬শ’ ৩৮ টি ট্রান্সফরমার মেরামত এবং ৪৯ হাজার ১শ’ ৫০ ঘনমিটার বৈদ্যুতিক তার ক্রয় করা হবে।

নতুন সংযোগ স্থাপনের ফলে ৭৭৫ মেগাওয়াট বিদ্যুতের লোড বৃদ্ধি পাবে, যা ৪ শতাংশ সিস্টেম লস কমাতে সাহায্য করবে। এছাড়া, ৩০ কিলোমিটার ৩৩ কেভি, ১১ কেভি, দশমিক শূন্য ৪ কেভি স্থাপনের মাধ্যমে বিদ্যুত ব্যবস্থার আধুনিকায়ন করা হবে।

পাশাপাশি, প্রকল্পের আওতায় রয়েছে ৩৩ কেভি ২২১ কিলোমিটার লাইন এবং ৩৩ কেভি ২১৮ কিলোমিটার লাইন, ৩৪১ কিলোমিটার ১১ কেভি লাইন এবং ৩৩ কেভি ৩৭৫ কিলোমিটার লাইন সংস্কারকরণ কার্যক্রম।

প্রকৌশলী আলী জানান, রাজশাহী অঞ্চলের ১৬ হাজার ৪শ’ ৯৩ কিলোমিটার এলাকায় ২ কোটি ৭০ লাখ মানুষ বসবাস করে। সেচ ও শিল্প কারখানা বৃদ্ধির ফলে দিন দিন এ অঞ্চলে বিদ্যুতের চাহিদা বেড়েই চলেছে। পাশাপাশি, পাবনায় একটি ইপিজেড স্থাপিত হওয়ায় এবং রাজশাহীতে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বৃদ্ধি পাওয়ায় বিদ্যুতের ঘাটতি দেখা দিয়েছে।

রাজশাহী সদর, রাজশাহী নগরী, গোমোস্তাপুর, গোদাগাড়ি এবং তানোর উপজেলা প্রকল্পের আওতায় আসবে। এছাড়া প্রকল্পের আওতায় চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার সদর, শিবগঞ্জ, নাটর সদর, পাবনা সদর, ঈশ্বরদী, সিরাজগঞ্জ সদর, বগুড়া সদর, শেরপুর, শান্তাহার, দুপচাচিয়া এবং শিবগঞ্জ উপজেলা রয়েছে।

ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট অাইনে পু্র্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবেনা ।

মন্তব্য

মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু নিয়ে ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো দায় নেবে না।

স্বদেশ এর অারো খবর