গেইমারের অভিব্যক্তিতে সম্ভাবনাময় গেইমিং শিল্প
গেইমারের অভিব্যক্তিতে সম্ভাবনাময় গেইমিং শিল্প
২০১৬-০৫-০৩ ০২:৩৩:০০
প্রিন্টঅ-অ+


মানুষের অভিব্যক্তি বুঝতে পারা একটি কম্পিউটার অ্যালগরিদম গেইমিং শিল্পের জন্য আশীর্বাদ হয়ে উঠতে পারে, নতুন এক গবেষণায় এমন তথ্য খুঁজে পেয়েছেন আন্তর্জাতিক গবেষকদের নিয়ে গড়া একটি গবেষক দল।

দক্ষিণ কোরিয়ার সুংসিল ইউনিভার্সিটি-এর স্কুল অফ মিডিয়া-এর হিউং-ইল কই এবং ভিয়েতনাম ন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি-এর নান থি কাও এবং আন হোয়া টন একসঙ্গে বিশ্লেষণ করে দেখান যে, খেলোয়াড়দের অভিব্যক্তি ধারণ করে ইন্টারঅ্যাকটিভ গেইমে বিভিন্ন উদ্দেশ্যে ব্যবহার করা সম্ভব —জানিয়েছে আইএএনএস।

গবেষকদলটি বলে, “যখন খেলোয়াড়দের মুখের অভিব্যক্তি বুদ্ধিমান গেইম সিস্টেমে প্রয়োগ করা হবে, অভিজ্ঞতাটি আরও কার্যকর, প্রাণবন্ত এবং আকর্ষণীয় হয়ে উঠতে পারে।” গবেষকরা আরও জানান, এটি খেলোয়াড়দের আবেগকে অন্য খেলোয়াড়ের সঙ্গে যোগাযোগের সময় নিয়ন্ত্রণ করে বিভিন্ন পরিস্থিতিতে মানানসই অভিব্যক্তি ফুটিয়ে তুলতে পারে। শিক্ষামূলক কাজেও এটি ব্যবহার করা সম্ভব বলে মত দিয়েছেন তারা।

গবেষকদলটি একটি সাধারণ এবং দ্রুত কাজ করা সিস্টেম তৈরি করেছে, যা হাজারেরও বেশি মুখচ্ছবির পরীক্ষায় প্রায় ৯৯ শতাংশ নির্ভুল। যুক্তরাজ্যভিত্তিক ইন্টারন্যাশনাল জার্নাল অফ কম্পিউটেশনাল ভিশন অ্যান্ড রোবোটিক্স এ গবেষণাটির ফলাফল প্রকাশিত হয়।

সিস্টেমটি ভ্রুর অবস্থান, চোখের পাতা, মুখের আকৃতি এবং অন্যান্য বৈশিষ্ট্য মানুষের রাগ, বিরক্তি, ভয়, আনন্দ, দুঃখ, বিস্ময় এবং নিরপেক্ষ ইত্যাদি মৌলিক আবেগের সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ রাখতে গাণিতিক পদ্ধতি ব্যবহার করে থাকে।

সিস্টেমটি ৪৮ পিক্সেল বর্গের মুখচ্ছবিতেও কাজ করে। মুখের অভিব্যক্তি অনুধাবণ সাম্প্রতিক বছরগুলোতে গবেষণার অন্যতম প্রধান বিষয় হয়ে উঠেছে।

ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট অাইনে পু্র্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবেনা ।

মন্তব্য

মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু নিয়ে ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো দায় নেবে না।

বিজ্ঞান প্রযুক্তি এর অারো খবর