রমজানে চিনির দাম ৬ টাকা বৃদ্ধি
রমজানে চিনির দাম ৬ টাকা বৃদ্ধি
২০১৬-০৪-২৬ ০১:০৫:৪২
প্রিন্টঅ-অ+


মাত্র দেড় মাসের ব্যবধানে প্রতিকেজি চিনির দাম বেড়েছে ৬ টাকা। তবে পাড়া-মহল্লার দোকানে বেড়েছে ৮ টাকা। চিনি আমদানিতে মূল্য সংযোজন কর (মূসক) আরোপ করাকে বৃদ্ধির প্রধান কারণ হিসেবে দেখছেন বিক্রেতারা।

এর সঙ্গে রয়েছে আসন্ন রমজান ঘিরে অসাধু ব্যবসায়ীদের দৌরাত্ম্য। ফলে রমজান উপলক্ষে আগামী কয়েক সপ্তাহে আরেক দফা চিনির দাম বৃদ্ধির আশঙ্কা করছেন সংশ্লিষ্টরা।
গত ২৩ ডিসেম্বর জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর) চিনি আমদানিতে নতুন করে ১৫ শতাংশ মূল্য সংযোজন কর (মূসক) আরোপ করে। এরপর থেকে কয়েক ধাপে বেড়েছে চিনির দাম।

ফেব্রুয়ারি মাসের শেষ দিকে বাজারে প্রতিকেজি চিনি বিক্রি হতো ৪৮ থেকে ৫০ টাকায়। এক দফা বেড়ে মার্চের শেষ দিকে এই দাম হয় প্রতি কেজি ৫২ টাকা।

সর্বশেষ চলতি মাসের দ্বিতীয় সপ্তাহে আরেক দফা চিনির দাম বাড়ে। এতে প্রতি কেজি চিনির দাম হয়েছে ৫৫ থেকে ৫৬ টাকা। আর প্যাকেট চিনি বিক্রি হচ্ছে ৫৮ টাকা করে।
সোমবার রাজধানীর কয়েকটি বাজার ঘুরে এসব চিত্র দেখা গেছে।

এ দিকে পাইকারি বাজারে খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ৫০ কেজির বস্তা চিনি বিক্রি হচ্ছে ২৪০০ টাকায়। সেই হিসেবে কেজি প্রতি চিনি ৪৮ টাকা করে কিনতে হচ্ছে দোকানিকে। তারা খুচরা বিক্রি করছেন ৫৫-৫৬ টাকায়।

রমজান আশার আগে চিনির দাম আরও কয়েক ধাপে বাড়তে পারে বলে জানিয়েছেন হাজারীবাগ বাজারের বিক্রেতা তপন। তিনি বলেন, বেশি দাম দিয়ে কিনতে হয় বলেই তাদের বেশি দামে বিক্রি করতে হচ্ছে। ৪৮ টাকায় কিনতে হচ্ছে তাই ৫৫ টাকায় বিক্রি করছেন। কত টাকা আর লাভ করছেন। এর মধ্যে চিনি আনার জন্য গাড়ি ভাড়া ও মজুরি খরচও আছে। সব মিলিয়ে কেজিতে ৪ থেকে ৫ টাকা লাভ হয়।

তবে রমজান উপলক্ষে অনেক মুদি দোকানিরা চিনি মজুদ করা শুরু করে দিয়েছেন, যাতে পরে তারা বেশি দামে বিক্রি করতে পারেন বলেও স্বীকার করেন তিনি।

একই বাজারের খুচরা ব্যবসায়ী আশরাফুল ইসলাম বলেন, পাইকারি বাজারে যা দাম বেড়েছে, তার চেয়ে পাঁচ থেকে ছয় টাকা বাড়িয়ে খুচরা বাজারে চিনি বিক্রি করা হচ্ছে। তারা বেশি দামে কিনলে বেশি দামে বিক্রি করেন।

এক ক্রেতা আনোয়ারুল ইসলাম বলেন, বর্তমানে দেশের চাহিদার সিংহ ভাগ চিনি সরবরাহ করে রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন ১৯টি চিনি কল। ফলে সরকার যদি চিনির দাম নির্ধারণ বা কমায়, তাহলেই চিনির দাম কমবে। এ ছাড়া চিনির দাম কমার সুযোগ দেখতে পাচ্ছেন না। আবার দাম কমালেই হবে না, ঠিকভাবে বাজার মনিটরিংও করতে হবে সরকারকে।

ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট অাইনে পু্র্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবেনা ।

মন্তব্য

মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু নিয়ে ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো দায় নেবে না।

অর্থনীতি এর অারো খবর