মঙ্গলে আলুচাষ!
মঙ্গলে আলুচাষ!
২০১৬-০৩-৩০ ০১:০২:৩০
প্রিন্টঅ-অ+


আমাদের পৃথিবীর সবচেয়ে কাছের গ্রহ মঙ্গল। মঙ্গলে বসবাস করার স্বপ্নেও মুখিয়ে আছে মানুষ। সম্প্রতি নাসা আবারও স্বপ্ন দেখাতে শুরু করেছে। মার্কিন মহাকাশ গবেষণা সংস্থার বিজ্ঞানীরা মঙ্গলে আলু চাষের পরিকল্পনা করছেন বলে জানিয়েছে সংস্থাটি। আর বলার অপেক্ষা রাখেনা যে নাসার এ উদ্যগ সফল হলে মানুষের জন্য মঙ্গলে বসবাসের দিন আরও এগিয়ে আসবে।

পেরুর একটি আন্তর্জাতিক আলু উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে একযোগে এই কাজে অংশ নেবে নাসা। তার গবেষণা করে এমন ধরনের আলু বীজ উন্নয়ন করবে, যা মঙ্গলের মাটিতে বেড়ে উঠতে সক্ষম হবে। পৃথিবীর অন্যতম প্রাচীন মরুভূমি হচ্ছে অ্যাটকামা। ধারণা করা হচ্ছে মঙ্গলের মাটি সেই অঞ্চলের সঙ্গে সাদৃশ্যপূর্ণ। বিজ্ঞানীদের ধারণা, এই মাটির উপযোগী আলু বীজ উৎপাদন করা গেলে তা মঙ্গলেও কাজ করতে পারে।

এ বিষয়ে নাসার বিজ্ঞানী জুলিও ভলদিবিয়া বলেন, ‘আমরা পৃথিবীর সঙ্গে মঙ্গলের মাটির প্রচুর মিল খুঁজে পেয়েছি। মঙ্গলে অন্যান্য মিশনের পরীক্ষা-নিরীক্ষার মতো এই বিষয়েও বিস্তর গবেষণা করা হয়েছে।’ তিনি বলেন, ‘আলুই হতে পারে এক্ষেত্রে সবচেয়ে উত্তম উপায়। কারণ সব পরিবেশের ধকল কাটিয়ে উঠে পৃথিবীতে আলু নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করতে পেরেছিল।’ বিজ্ঞানীরা গবেষণা করার জন্য প্রায় ১০০ প্রজাতির আলুকে বেছে নিয়েছেন। বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা তথ্য ও নমুনা সংগ্রহ করে তাকে নিয়ে যাবেন পেরুর রাজধানী লিমাতে। সম্প্রতি পেরুর পটেটো সেন্টার এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানায়, ‘কার্বন ডাই-অক্সাইডের মাত্রা ফসলটির জন্য খুবই সহায়ক হবে। কারণ স্বাভাবিকের চেয়ে দুই থেকে চারগুণ মাত্রার বেশি পরিমাণ কার্বন ডাই-অক্সাইড সহ্য করতে পারে আলু। মঙ্গলের বায়ুমণ্ডলে প্রায় ৯৫ শতাংশই হচ্ছে কার্বন ডাই-অক্সাইড।’

এর অংশ হিসেবে পৃথিবীতে মঙ্গলগ্রহের পরিবেশ সৃষ্টি করে আলু চাষ করার পরিকল্পনা চলছে। পেরুর ইন্টারন্যাশনাল পটেটো সেন্টার (সিআইপি) ও মার্কিন মহাকাশ গবেষণা প্রতিষ্ঠান নাসার গবেষকরা এ পরিকল্পনা করছেন।

গবেষকরা দাবি করেছেন, প্রতিকূল পরিবেশে পৃথিবীর লাখ লাখ মানুষের জীবন বাঁচাতে আলুর চাষ করা হচ্ছে। তারা আরো জানান, মঙ্গলগ্রহে নিয়ন্ত্রিত একটি ঘর তৈরি করে সেখানে প্রয়োজনীয় চাষাবাদ করার লক্ষ্যে গবেষণাটি করা হচ্ছে।

নাসার প্লানেটারি সায়েন্টিস্ট ক্রিস ম্যাককে বলেন, ‘মঙ্গলে খাবার উৎপাদনের বিষয়টি শিগগিরই বাস্তবতার মুখ দেখবে। সিআইপির যোগাযোগপ্রধান জোয়েল র‌্যাংক বলেন, ‘আমরা যদি মঙ্গলগ্রহের মতো প্রতিকূল কোনো পরিবেশে আলুর চাষ করতে পারি, তবে পৃথিবীতে লাখো মানুষের জীবন বাঁচাতে পারব।
আইএএনএস, আলজাজিরা

ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট অাইনে পু্র্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবেনা ।

মন্তব্য

মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু নিয়ে ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো দায় নেবে না।

বিজ্ঞান প্রযুক্তি এর অারো খবর