মহাকাশে দ্বিতীয় স্টেশন স্থাপনের পরিকল্পনা চীনের
মহাকাশে দ্বিতীয় স্টেশন স্থাপনের পরিকল্পনা চীনের
২০১৬-০৩-০২ ০১:৫৭:০৩
প্রিন্টঅ-অ+


চলতি বছরেই মহাশূন্যে উন্নত গবেষণার জন্য দ্বিতীয় মহাকাশ গবেষণাগার উৎক্ষেপণ করতে যাচ্ছে চীন।

তিয়াংগং-২ নামের নতুন এই গবেষণাগারে আগামী বছরেই মালামালবহনকারী মহাকাশযান থামানোরও পরিকল্পনা করছে দেশটি।

চীনের সংবাদমাধ্যম সিনহুয়া এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, এই মহাকাশ গবেষণাগার প্রকল্পের অংশ হিসেবে এ বছরেরই দুইজন নভোচারী নিয়ে শেনঝু-১১ মহাকাশযান উৎক্ষেপণ করবে চীন। মহাকাশযানটি আগামী বছর তিয়াংগং-২ এর সঙ্গে যুক্ত হবে।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম ইন্দো এশিয়ান নিউজ সার্ভিস (আইএএনএস) জানিয়েছে, দেশটির হাইনান প্রদেশের ওয়েনচ্যাং স্যাটেলাইট উৎক্ষেপণ কেন্দ্রে এই মহাকাশযানটির পরীক্ষামূলক উৎক্ষেপণ সফল হলে পরবর্তী প্রজন্মের লং মার্চ-৭ রকেটের সাহায্যে মালামাল বহনকারী মহাকাশযান প্রেরণ করবে দেশটি।

তিয়ানহু-১ নামের এই যানটিই হবে চীনের প্রথম মালামালবহনকারী মহাকাশযান। ২০১৭ সালের প্রথমার্ধেই এই যানটি তিয়াংগং-২ তে গিয়ে থামবে।

এই সম্পূর্ণ প্রক্রিয়া সফলভাবে সম্পন্ন হলে তিয়াংগং-২ হবে, ‘স্বর্গীয় যান’। আর মহাকাশ বিজ্ঞান নিয়ে আরও বৃহৎ পরিসরে পরীক্ষা নিরীক্ষা চালাতে সাহায্য করবে এটি।

আর এই পক্রিয়ার মধ্যেই মালামাল পরিবহন প্রযুক্তি, কক্ষপথে পুনরায় সরবরাহ, মাঝারী সময়ের জন্য নভোচারীর থাকার ব্যবস্থার মতো বিষয়গুলো নিয়ে গবেষণা করবে দেশটি। ২০২২ সালের মধ্যেই লক্ষ্য কোটি মার্কিন ডলারের আরেকটি মহাকাশ স্টেশন বসানোর লক্ষ্য রয়েছে দেশটির। এই স্টেশনটিতে স্থায়ীভাবে মানুষ থাকতে পারেবে বলেও জানিয়েছে আইএএনএস।

উল্লেখ্য, ২০১১ সালের সেপ্টেম্বরে চীন তাদের প্রথম মহাকাশ গবেষণাগার তিয়াংগং-১ উৎক্ষেপণ করেছে। এর পরবর্তী দুই বছরের মধ্যে সফলভাবে দুটি মহাকাশযানও এতে গিয়ে থামে।

ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট অাইনে পু্র্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবেনা ।

মন্তব্য

মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু নিয়ে ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো দায় নেবে না।

বিদেশ এর অারো খবর