চালু হতে যাচ্ছে ন্যাশনাল ই-সার্ভিস বাস
চালু হতে যাচ্ছে ন্যাশনাল ই-সার্ভিস বাস
২০১৬-০২-১৭ ০৯:১৯:২৭
প্রিন্টঅ-অ+


ন্যাশনাল ই-সার্ভিস বাস চালু করতে যাচ্ছে সরকার। ডিজিটাল তথ্য সুবিধা নিশ্চিত, ই-সার্ভিস সুবিধার উন্নয়ন এবং আন্তঃসরকার সংস্থাগুলোর মধ্যে সংযোগ সুবিধা গড়ে তোলার লক্ষ্যেই সরকারের এ উদ্যোগ। আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমদ পলকের বরাত দিয়ে রাষ্ট্রীয় সংবাদ সংস্থা বাসস-এ তথ্য জানায়।

জাতীয় ই-সেবা বাস হবে সফটওয়্যার নিয়ন্ত্রিত মিডলওয়্যার প্লাটফর্ম। এতে আন্তঃসংযোগ এবং গ্রাহকদের সহজে ই-সুবিধা নিশ্চিত করতে মন্ত্রণালয় বিভাগ ও অধিদফতরগুলোর মধ্যে তথ্য ও ডাটা বিনিময় সুবিধা রেখে জাতীয় ই-সার্ভিস বাসগুলো উন্নত করা হচ্ছে।

সফটওয়্যার নিয়ন্ত্রিত অনলাইন সার্ভিস, তথ্য ও ডাটা তৈরি করা হচ্ছে মন্ত্রণালয়গুলোর মাধ্যমে । বিভাগ ও অধিদফতরগুলো এই মান বাংলাদেশ ন্যাশনাল এন্টারপ্রাইজ আর্কিটেকচারের (বিএনইএ) অধীনে কাঠামো অনুসরণ করবে। বিএনইএ যুক্ত হবে এনইএ বাসের সঙ্গে যা মন্ত্রণালয় ও বিভাগের মধ্যে আন্তঃসংযোগ গড়ে তুলবে।

প্রবৃদ্ধি, কর্মসংস্থান জোরদারের লক্ষ্যে বিশ্বব্যাংকের অর্থায়নে বিএনইএ’র অধীনে ন্যাশনাল ই-সার্ভিস বাস চালুর জন্য কারিগরি সহযোগিতা দিতে যুক্তরাজ্যভিত্তিক আর্নস্ট অ্যান্ড ইয়ুংকে (ই-ওয়াই) নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।

পলক বলেন, বিভিন্ন সেবা, তথ্য ও ডাটা সহজে পেতে ২০২১ সাল নাগাদ ‘ডিজিটাল গভর্নমেন্ট’ গড়ে তোলার ধারবাহিকতায় মন্ত্রণালয়, বিভাগ ও অধিদফতর সফটওয়্যারভিত্তিক অ্যাপ্লিকেশনগুলোর উন্নয়ন করা হচ্ছে।

বিসিসি নির্বাহী পরিচালক এস এম আশরাফুল ইসলাম বলেন, সরকারের কিছু সংস্থা নিজেদের ব্যবহারের জন্য পৃথকভাবে তথ্য সমৃদ্ধ ও উন্নত ডাটাবেজ গড়ে তুলতে বিপুল অর্থ ব্যয় করছে। তবে এই সংস্থাগুলো যদি তাদের তথ্য ও ডাটাবেজ ন্যাশনাল ই-সার্ভিসে সংযোগ দিত তাহলে অন্য সংস্থা দিয়ে বার বার তাদের ডাটাবেজের উন্নয়ন ঘটানোর প্রয়োজন হতো না।

ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর প্রকাশিত প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, রেখাচিত্র, ভিডিও, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট অাইনে পু্র্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবেনা ।

মন্তব্য

মন্তব্যে প্রকাশিত মত মন্তব্যকারীর একান্তই নিজস্ব। মন্তব্যকারীর বক্তব্যের বিষয়বস্তু নিয়ে ইঞ্জিনিয়রবিডি ডটকম-এর কর্তৃপক্ষ আইনগত বা অন্য কোনো দায় নেবে না।

বিজ্ঞান প্রযুক্তি এর অারো খবর